প্রাক্তনকে ভুলতে পারছেন না? জেনে নিন করণীয়

প্রেম ভেঙে যাওয়ার পরে ধীরে ধীরে সব স্মৃতি মুছে নতুন করে জীবন শুরু করলেন। নতুন সম্পর্কে জড়িয়েছেন আবার। বর্তমান সঙ্গী আপনাকে বোঝে বেশ। সম্মানটুকুও বজায় আছে বর্তমান সম্পর্কে। আগের থেকে ভালোই আছেন এখন। তবু হঠাৎ হঠাৎই অতীত এসে কষ্ট দেয়? মনে পড়ে সেই মুখটি?

প্রাক্তনের স্মৃতি নিয়ে মনে মনে কষ্ট পাচ্ছেন। বারবার মনে হচ্ছে ঠিক সিদ্ধান্ত নিলাম তো। ভাবছেন তার সঙ্গে থাকলে আমার জীবনটা অকটু অন্যরকম হতো। এমন অবস্থায় পড়লে মনকে সামলানো মুশকিল হয়ে পড়ে। অনেকেই বুঝতে পারেন না, তার আসলে কী করণীয়। এমন অবস্থায় পড়লে আপনি কী করবেন? জেনে নিন-

প্রাক্তনকে ঈর্ষান্বিত করতে বা কাউকে দেখানোর জন্য জোর করে প্রেম করতে যাবেন না যেন! মন থেকে সায় মিললে তবেই নতুন সম্পর্কে জড়ান। বর্তমান সঙ্গীর সঙ্গে কাটানো সময়টুকু উপভোগ করুন। পুরনো স্মৃতি ঘেঁটে অযথা কষ্ট বাড়াবেন না।। ভবিষ্যতে কী হবে তা সবসময় না ভাবাই ভালো।

নিজেকে আপনি যতটা বুঝতে পারেন, অন্য কেউ তা পারবে না এটাই স্বাভাবিক। তাই নিজের আবেগগুলোকেও নিয়ন্ত্রণ করার চেষ্টা করুন। নিজেকে যাচাই করুন। কেন আপনি প্রাক্তনের প্রতি আবেগপ্রবণ হয়ে পড়ছেন তার কারণ খুঁজে বের করুন। এক্ষেত্রে সবার আগে সোশ্যাল মিডিয়ায় পুরনো ছবি ঘাঁটা বন্ধ করুন।

যদি আপনি বর্তমান সঙ্গীর কাছে প্রাক্তন সম্পর্কের বিষয়ে কিছু লুকিয়ে থাকেন তবে মনের মধ্যে খচখচানি থাকতেই পারে। পরস্পরের অতীত সম্পর্কে কিছু না লুকানোই ভালো। এতে সম্পর্ক মজবুত হয়। বর্তমানের সঙ্গীকে জানান আপনার প্রাক্তনের সঙ্গে কেমন সম্পর্ক ছিল। যদি এখনও যোগাযোগ থেকে থাকে তাও জানান।

যদি আপনার বারবার মনে হতে থাকে যে আগের সম্পর্ক থেকে বেরিয়ে এসে ভুল হয়েছে তাহলে আবার ভাবুন। কারণ জোর করে কোনো সম্পর্ক টেকানো যায় না। ভাঙা সম্পর্ক জোড়া লাগানোর কথা অনেকেই বলেন। সেক্ষেত্রে জোড়া লাগাতে না চাইলে প্রাক্তনকে সোশ্যাল মিডিয়া থেকে ব্লক করে দিন। একান্ত না পারলে আবার যোগাযোগ শুরু করুন।

অনেক সময় আপনি আপনার প্রাক্তনকে মিস করেন না, কিন্তু নিজের কিছু ভুলের জন্য নিজেই দুঃখ পান। নিজের ভাগ্যকে দোষ দেন, মনে করেন যার সঙ্গে প্রেম করছেন সে বোধহয় আপনাকে সুখী রাখতে পারবে না। তবে মনে রাখবেন জীবনে এগিয়ে যাওয়াটা খুব জরুরি। ভুল মানুষ মাত্রেই হয়। কাজেই নিজের অতীত তুলে প্রশ্ন করা বন্ধ করুন। অতীতকে ভুলতে চেষ্টা করুন।

Comments

comments

You might also like